ব্যাটসম্যানদের দাপট, আলোর স্বল্পতা আর বৃষ্টি বিভ্রাটে ক্যান্ডি টেস্ট ড্র

musfiqur rahim

শ্রীলংকার বিপক্ষে ক্যান্ডির পাল্লেকেলে স্টেডিয়ামে ব্যাটসম্যানদের দাপট, আলোর স্বল্পতা আর বৃষ্টি বিভ্রাটের টেস্টে ড্র করল বাংলাদেশ।

টস জিতে নাজমুল হোসেন শান্ত (১৬৩) ও মুমিনুল হক সৌরভের (১২৭) সেঞ্চুরি আর তামিম ইকবাল (৯০), মুশফিকুর রহিম (৬৪*) ও লিটন দাসের (৫০) ফিফটিতে ভর করে ৭ উইকেটে ৫৪১ রান করে প্রথম ইনিংস ঘোষণা করে বাংলাদেশ।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে অধিনায়ক দিমুথ করুনারত্নের (২৪৪) ডাবল আর ধনঞ্জয়া ডি সিলভার (১৬৬) সেঞ্চুরি ও লাহিরু থিরিমান্নের (৫৮) ফিফটিতে ভর করে ৮ উইকেটে ৬৪৮ রান সংগ্রহ করে ১০৭ রানের লিড নিয়ে ইনিংস ঘোষণা করে শ্রীলংকা।

১০৭ রানে পিছিয়ে থেকে রোববার দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাটিংয়ে নেমে মাত্র ২৭ রানে ওপেনার সাইফ হাসান ও প্রথম ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান নাজমুল হোসেন শান্তর উইকেট হারায় বাংলাদেশ।

তৃতীয় উইকেটে অধিনায়ক মুমিনুল হক সৌরভকে সঙ্গে নিয়ে অবিচ্ছিন্ন ৬৩ রানের জুটি গড়ে দলীয় ১০০/২ রানে চা বিরতিতে যান তামিম। বিরতি থেকে মাঠে ফেরার আগেই শুরু হয় বৃষ্টি। বৃষ্টির কারণে পঞ্চম দিনের শেষ সেশনে ৩৫ ওভার খেলা হয়নি। শেষ পর্যন্ত ড্রয়ে মীমাংসা হয় ক্যান্ডি টেস্ট।

প্রথম ইনিংসে ৯০ রানে আউট হওয়া তামিম দ্বিতীয় ইনিংসে ৭৪ রানে অপরাজিত থাকেন। প্রথম ইনিংসে সেঞ্চুরি করা অধিনায়ক মুমিনুল হক সৌরভ দ্বিতীয় ইনিংসে করেন অপরাজিত ২৩ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোর
বাংলাদেশ ১ম ইনিংস: ১৭৩ ওভারে ৫৪১/৭ (শান্ত ১৬৩, মুমিনুল ১২৭, তামিম ৯০, মুশফিক ৬৮*, লিটন ৫০, তাসকিন ৬*, মিরাজ ৩, তাইজুল ২; ফার্নান্দো ৪/৯৬)। এবং ২য় ইনিংস: ৩৩ ওভারে ১০০/২ (তামিম ৭৪*, মুমিনুল ২৩*, সাইফ ১, শান্ত ০)।

শ্রীলংকা ১ম ইনিংস: ১৭৯ ওভারে ৬৪৮/৮ (করুনারত্নে ২৪৪, ডি সিলভা ১৬৬, থিরিমান্নে ৫৮,হাসারঙ্গা ডি সিলভা ৪৩, ম্যাথিউস ২৫, সুরঙ্গা লাকমাল ২২*, ফার্নান্দো ২০; তাসকিন ৩/১১২, তাইজুল ২/১৬৩)।