যশোরে ৬ আসনে নৌকার বিপক্ষে ১৭ প্রার্থী

আগামী ৭ জানুয়ারি দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে যশোরের ৬টি আসন থেকে ৩৮ প্রার্থী মনোনয়ন কিনেছেন। এর মধ্যে নৌকার বিপক্ষে স্বতন্ত্র হিসেবে মনোনয়ন কিনেছেন ১৭ বঞ্চিত আওয়ামী লীগ নেতা। এছাড়া জাতীয় পার্টির ৪জন, জাকের পার্টির ৪জন তৃণমূল বিএনপি ২জন এবং বিকল্পধারা, মুসলিম লীগ, জাসদ, ইসলামী ঐক্য জোর ও বাংলাদেশের কংগ্রেস দলের পক্ষে একজন করে প্রার্থী মনোনয়ন ক্রয় করেছেন।

যশোর-১ (শার্শা) আসন থেকে মনোনয়ন কিনেছে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিন। এই আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন কিনেছেন বেনাপোল পৌরসভার সাবেক মেয়র জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আশরাফুল আলম লিটন, আওয়ামী লীগ নেতা নাজমুল হাসান ও জাকের পার্টির সবুর খান ও জাতীয় পার্টির মোঃ আক্তারুজ্জামান।

যশোর-২ (চৌগাছা ও ঝিকরগাছা) আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন ফরম কিনেছেন সাবেক সংসদ সদস্য জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মনিরুল ইসলাম, আওয়ামী লীগ নেতা আসাদুজ্জামান, বাংলাদেশ কংগ্রেসের প্রার্থী আব্দুল আওয়াল, জাকের পার্টির প্রার্থী সাফারুজ্জামান ও জাতীয় পার্টির ফিরোজ শাহ ও আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী মোঃ তৌহিদুজ্জামান।

যশোর-৩ (সদর) আসন থেকে মনোনয়ন ফরম কিনেছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ। এ আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন কিনেছেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাংগঠনিক সম্পাদক ও যশোর পৌরসভার সাবেক মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোহিত কুমার নাথ, মুসলিম লীগের প্রার্থী মোহনা খাতুন, স্বতন্ত্র হিসেবে কাজী আনিসুজ্জামান ও মোহাম্মদ রবিউল আলম জাসদ। মোঃ মাহবুব আলম জাতীয় পার্টি।

যশোর-৪ (বাঘারপাড়া ও অভয়নগর) আসন থেকে মনোনয়ন ফরম কিনেছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী এনামুল হক বাবুল। এ আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন কিনেছেন সাবেক ধর্ম প্রতিমন্ত্রী এম নাজিম উদ্দীন আল আজাদ, তৃণমূল বিএনপির লে. কর্ণেল এম শাব্বির আহমেদ (অব:), জাতীয় পার্টির জহুরুল হক, জাকের পার্টির লিটন মোল্যা। সন্তোষ অধিকারি স্বতন্ত্র (সাবেক সচিব।)

যশোর-৫ (মনিরামপুর) আসনে থেকে মনোনয়ন ফরম কিনেছেন আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য। স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন কিনেছেন আওয়ামী লীগ নেতা ইয়াকুব আলী, আওয়ামী লীগ নেতা সাবেক এমপি খান টিপু সুলতানের ছেলে হুমায়ুন সুলতান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহসভাপতি পৌর মেয়র আমজাদ হোসেন লাবলু, তৃণমূল বিএনপির প্রার্থী আবু নসর মোহাম্মদ মোস্তফা। হাফেজ মাওলানা নুরুল্লাহ আব্বাসী ইসলামী ঐক্যজোট।

যশোর-৬ কেশবপুর আসন থেকে মনোনয়ন কিনেছে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য শাহীন চাকলাদার। এ আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন কিনেছেন আওয়ামী লীগ নেতা আজিজুল ইসলাম, কাজী রফিকুল ইসলাম, হোসাইন মোহাম্মদ ইসলাম, এইচএম আমীর হোসেন ও জাকের পার্টির সাইদুজ্জামান।

৩০ নভেম্বর পর্যন্ত মনোনয়ন ক্রয় করা ও জমা কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক আবরাউল হাছান মজুমদার।