মিয়ানমারে বন্ধ গণমাধ্যম, ইন্টারনেটে চলছে নজিরবিহীন ফিল্টারিং

myanmar - barma

মিয়ানমারজুড়ে ইন্টারনেট সেবা ও সংবাদ প্রচার কঠিনভাবে নিয়ন্ত্রিত হচ্ছে। গণতান্ত্রিক শাসককে উৎখাতের মাধ্যমে সেনাবাহিনী দেশটির ক্ষমতা দখলের পর থেকেই বেশিরভাগ এলাকায় ইন্টারনেট বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়।

নাটকীয়ভাবে অং সান সুচির উৎখাত বিশ্বের নজর কাড়তে সক্ষম হলেও, মিয়ানমারের মানুষ রয়েছে অনেকটাই অন্ধকারে। জনগণ যাতে ঐক্যবদ্ধ হতে না পারে সে জন্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোও নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছে। দেশের বড় একটি অংশের মোবাইল যোগাযোগও বন্ধ রয়েছে। এ খবর দিয়েছে সিএনএন।

এরমধ্যে মিয়ানমারের সবথেকে বড় অনলাইন প্লাটফর্ম ফেসবুক জানিয়েছে, নির্দিষ্ট কিছু মানুষের জন্য ফেসবুক এক্সেস বন্ধ করে দিয়েছে মিয়ানমার।

স্বাধীন পর্যবেক্ষকরা জানিয়েছেন, সেনা অভ্যুত্থানের পর থেকেই মিয়ানমারে ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপসহ অন্যান্য বিভিন্ন প্লাটফর্মে নজিরবিহীন ফিল্টারিং চলছে। দেশের সংবাদমাধ্যমগুলোও বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। চালু রয়েচেহ শুধু সামরিকবাহিনী পরিচালিত টিভি নেটওয়ার্ক।