করোনা ও উপসর্গে কুষ্টিয়ায় আরও ১৮ জনের মৃত্যু

hospital

গত ২৪ ঘণ্টায় কুষ্টিয়ার করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে আরও ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের মধ্যে করোনায় ১৪ জন এবং উপসর্গ নিয়ে চারজন মারা গেছেন।

শনিবার (৩১ জুলাই) সকাল ৮টা থেকে রোববার ১ আগস্ট সকাল ৮টা পর্যন্ত হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়। কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. এম এ মোমেন এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, ২০০ শয্যার করোনা ইউনিটে রোববার সকাল ৯টা পর্যন্ত রোগী ভর্তি রয়েছেন ২৪৩ জন। এর মধ্যে করোনা নিয়ে ভর্তি রয়েছেন ১৯১ জন এবং ৫২ জন উপসর্গ নিয়ে ভর্তি রয়েছেন।

এদিকে নতুন ৫৩৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১৮১ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। জেলায় করোনায় মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৬৭ জনে। নতুন ১৮১ জনসহ করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৪ হাজার ৪১৬ জন।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় করোনা শনাক্তের হার ৩৩ দশমিক ৯৫ শতাংশ। নতুন করে শনাক্ত হওয়া ১৮১ জনের মধ্যে কুষ্টিয়া সদরের ৯৬ জন, দৌলতপুরের ৩১ জন, কুমারখালীর আটজন,

ভেড়ামারার চারজন, মিরপুরের ২৯ জন এবং খোকসা উপজেলার ১৩ জন রয়েছেন। এখন পর্যন্ত জেলায় ৮৭ হাজার ১৪৪ জনের নমুনা পরীক্ষার জন্য নেয়া হয়েছে। নমুনা পরীক্ষার প্রতিবেদন পাওয়া গেছে ৮১ হাজার ৩৭১ জনের।

বর্তমানে কুষ্টিয়ায় সক্রিয় করোনা রোগীর সংখ্যা ৩ হাজার ৬৮ জন। তাদের মধ্যে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন ২৫০ জন ও হোম আইসোলেশনে আছেন ২ হাজার ৮১৮ জন।