প্রথম বাজেট অনুমোদন দিল তালেবান

A few members of the Taliban delegation head to attend the opening session of the peace talks between the Afghan government and the Taliban in Doha, Qatar, Saturday, Sept. 12, 2020. (AP Photo/Hussein Sayed)

আফগানিস্তানের ক্ষমতায় আসার পর প্রথম বাজেট অনুমোদন দিল তালেবান। তবে অনুমোদন দেওয়া এ বাজেটে বিদেশি সহায়তার কোনো উল্লেখ নেই।

বৃহস্পতিবার এ বাজেট অনুমোদনের কথা জানায় তালেবান। খবর বার্তা সংস্থা এএফপির।

২০২১ সালের ১৫ আগস্ট আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের পতনের মধ্য দিয়ে দেশটির ক্ষমতায় আসে তালেবান। এর পরের মাসে অন্তর্বর্তী সরকার গঠনের ঘোষণা দেয় তারা।

মার্কিন-সমর্থিত সাবেক সরকারের আমলে আফগানিস্তানের অর্থনীতি ছিল বিদেশি সাহায্যনির্ভর। তালেবানের ক্ষমতা দখলের পর পশ্চিমা দেশগুলো তাদের কোটি কোটি ডলারের সহায়তা বন্ধ করে দেয়। দেশটির জন্য বিরাট আর্থিক ধাক্কা হিসেবে অভিহিত করেছে জাতিসংঘ।

তালেবান অর্থ মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র আহমদ ওয়ালি হকমল বলেন, আমরা এমন একটি বাজেট তৈরি করেছি, যা বিদেশি সাহায্যের ওপর নির্ভর. শীল নয়। গত দুই দশকে প্রথমবারের মতো এমন বাজেট ঘোষিত হলো। এটি আমাদের জন্য বড় অর্জন।

বুধবার এ বাজেট অনুমোদন দেয়া হয়। বাজেটের আকার ৫৩ দশমিক ৯ বিলিয়ন আফগান মুদ্রা। আওতাকাল ২০২২ সালের প্রথম ত্রৈমাসিক। বাজেটটি প্রায় সম্পূর্ণরূপে সরকারি প্রতিষ্ঠানে অর্থায়নের জন্য।

এর প্রায় ৪ দশমিক ৭ বিলিয়ন আফগানি ব্যয় করা হবে পরিবহন অবকাঠামোসহ উন্নয়ন প্রকল্পে। হকমল বলেন, এ অর্থের পরিমাণ সামান্য। কিন্তু আমরা আপাতত এ অর্থ বরাদ্দ করতে পারছি।

তিনি জানান, সরকারি কর্মচারীদের অনেকে কয়েক মাস ধরে বেতন পাননি। তারা জানুয়ারির শেষে বেতন পেতে শুরু করবেন। নারী কর্মীদের বেতন দেয়া হবে।

হকমল বলেন, নারী কর্মীদের বরখাস্ত করা হয়নি।আগামী মার্চে তালেবান তাদের প্রথম বার্ষিক বাজেট ঘোষণা ঘোষণা করতে পাবে।