এবারও নতুন বই বছরের শুরুতেই

student

কয়েক দিন পরই নতুন বইয়ের ঘ্রাণে মাতোয়ারা হবে শিক্ষার্থীরা। করোনাভাইরাস সংক্রমণের কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় এবার ১ জানুয়ারি বই উৎসব না হলেও বছরের শুরুতেই বিনা মূল্যের বই শিক্ষার্থীদের হাতে তুলে দিতে সব প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। করোনা পরিস্থিতির মধ্যে নানা কারণে বইয়ের ছাপার কাজ বিলম্বিত হওয়ার শঙ্কা দেখা দিলেও ৩০ ডিসেম্বরের মধ্যে সব বই উপজেলা পর্যায়ে পৌঁছে যাবে বলে নিশ্চিত করেছে দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রতিষ্ঠান এনসিটিবি। ২০২১ শিক্ষাবছরের জন্য ছাপা হচ্ছে প্রায় ৩৫ কোটি বই।

এ ব্যাপারে এনসিটিবি চেয়ারম্যান অধ্যাপক নারায়ণ চন্দ্র সাহা বলেন, ‘প্রায় ৭০ শতাংশ বই বিভিন্ন জেলা-উপজেলায় পৌঁছে গেছে। বাকিগুলো আশা করি এ মাসের মধ্যেই পৌঁছে যাবে। করোনার মধ্যেও আমরা যথাসময়ে মানসম্মত বই শিক্ষার্থীদের তুলে দিতে পারব।’

তিনি বলেন, ‘করোনা পরিস্থিতির কারণে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান বন্ধ, কাগজের দাম বৃদ্ধিসহ বিভিন্ন অজুহাতে মুদ্রণকারীরা যথাসময়ে বই দিতে পারবে না বলে আশঙ্কা করলেও আমাদের নানা পদক্ষেপের কারণে সংকট কেটে গেছে। আমরা মুদ্রণ মালিকদের সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখছি। ৩০ ডিসেম্বর যে ডেটলাইন আছে, এর মধ্যেই সব বই পৌঁছে যাবে। এ রকম কিছু সমস্যা আগেও বিভিন্ন সময় দেখা দিলেও শেষ পর্যন্ত আমরা তা কাটিয়ে উঠতে পেরেছি, যথাসময়ে শিক্ষার্থীদের হাতে বই তুলে দিতে পেরেছি। এবারও কোনো সমস্যা হবে না।’

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, এ বছর ১৫১টি প্রিন্টিং প্রেসে ছাপা হচ্ছে প্রায় ৩৫ কোটি বই। এর মধ্যে ২৪.৪১ কোটি বই মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থী এবং ১০.৫৪ কোটি বই প্রাথমিক পর্যায়ের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য ছাপানো হচ্ছে। সময়মতো বই পৌঁছাতে এনসিটিবি কর্মকর্তারা প্রিন্টিং প্রেস এবং বই পৌঁছানোর কাজ জোর তদারকি করছেন। অন্যান্য বছরের মতো এবারও দৃষ্টিপ্রতিবন্ধীদের জন্য ব্রেইল বই এবং পাঁচটি ভাষায় ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর জন্যও রয়েছে নিজস্ব ভাষার প্রাক-প্রাথমিক থেকে তৃতীয় শ্রেণি পর্যন্ত বই।

প্রতিবছর ১ জানুয়ারি দেশজুড়ে উৎসবের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদের হাতে বই তুলে দেওয়া হলেও এ বছর তা হচ্ছে না। এ ব্যাপারে শিক্ষামন্ত্রী ডা দীপু মনি সম্প্রতি এক অনুষ্ঠানে বলেন, ‘করোনা সংক্রমণ রোধে এ বছর বই উৎসব করা যাচ্ছে না। তবে যথাসময়ে আমরা শিক্ষার্থীদের হাতে বিনা মূল্যের পাঠ্য বই পৌঁছে দেব।’

সব শিক্ষার্থীর জন্য শিক্ষার সুযোগ সৃষ্টি, ঝরে পড়া রোধ এবং শিক্ষাকে মানসম্পন্ন করার লক্ষ্যে আওয়ামী লীগ সরকার ২০১০ সাল থেকে প্রতিবছর ১ জানুয়ারি বই উৎসব করে আসছে। গত ১১ বছরে মোট ৩৩১.৩৮ কোটি বই বিতরণ করা হয়েছে।