বাঘারপাড়ায় বসত ঘর থেকে ২৫ ডিমসহ বিষধর গোখড়া সাপ উদ্ধার

snake

বসতবাড়ির ঘর থেকে ২৫টি ডিমসহ একটি বিষধর সাপ (গোখরা) উদ্ধার করা হয়েছে। শুক্রবার (১৮ জুন) বেলা সাড়ে ১২টার দিকে ঘরের মেঝের মাটি খুঁড়ে সাপটি উদ্ধার করা হয়।

যশোরের বাঘারপাড়ার বন্দবিলা ইউনিয়নের পার্বতীপুর ঈদগাহ পাড়ার ভ্যানচালক তছির শেখের বাড়িতে চাঞ্চল্যকর এই ঘটনা ঘটে। তিনি ওই গ্রামের মৃত খবির শেখের ছেলে।

তছির শেখ বলেন, বৃহস্পতিবার (১৭ জুন) সন্ধ্যায় তার মেয়ে পিনজিরা (৭)বসতঘরের শোবার ঘরের মেঝেতে একটি গর্ত দেখতে পায়। এ সময় গর্তের মুখে সাপের একটি খোলস পড়ে ছিল। প্রতিবেশীদের সাথে পরামর্শ করে শুক্রবার সকালে একজন ওঝা বাড়িতে আনা হয়। তিনি স্থানীয়দের সহযোগিতায় ঘরের মেঝের ওই গর্ত খোঁড়া শুরু করেন। এক পর্যায়ে খাটের নীচে গর্ত থেকে ২৫টি ডিমসহ একটি বিষধর মা সাপ (গোখরা) উদ্ধার করা হয়।

বন্দবিলার সাবেক ইউপি সদস্য রাশিদা পারভীন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি মুহূর্তেই চারিদিকে ছড়িয়ে পড়লে বিভিন্ন বয়সের মানুষ ওই বাড়িতে ভিড় জমায়। উদ্ধার হওয়া ডিমগুলো ধ্বংস করা হয় এবং সাপটির বিষদাঁত ভেঙ্গে ওঝা নিয়ে যান।

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার বারোবাজার থেকে আসা ওঝা ইয়াসিন হোসেন জানান, উদ্ধার হওয়া সাড়ে পাঁচ ফুট লম্বা মা সাপটি গোখরা। সপ্তাহ খানেক পরই ডিমগুলো ফেটে বাচ্চা বের হয়ে চারিদিকে ছড়িয়ে পড়তো। গোখরা সাধারণত ঘরের মেঝেতে থাকে। মাটির নিচে ডিম পাড়ে এবং মা সাপটি আশপাশে অবস্থান করে। বিষধর এই জাতের সাপের কামড়ে মানুষের মৃত্যু হতে পারে।